১৭ দফায় বাড়লো বেক্সিমকো সিনথেটিকসের লেনদেন বন্ধের মেয়াদ

0
73

নিজস্ব প্রতিবেদক: পুঁজিবাজারে তালিকাভুক্ত কোম্পানি বেক্সিমকো সিনথেটিক্স লিমিটেডের শেয়ার লেনদেন বন্ধের মেয়াদ ফের ১৫ দিন বাড়লো। এ নিয়ে কোম্পানির শেয়ার লেনদেন বন্ধের মেয়াদ ১৭ দফা বাড়নো হলো। আগামীকাল ২১ মে থেকে ১৫দিন কোম্পানির লেনদেন বন্ধ থাকবে। বৃহস্পতিবার (২০ মে) ঢাকা স্টক একচেঞ্জ (ডিএসই) সূত্রে জানা গেছে।

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) গত ৭ সেপ্টেম্বর কোম্পানির লেনদেন বন্ধ রাখতে প্রথম নির্দেশ দেন। সে অনুযায়ী দেশের উভয় স্টক এক্সচেঞ্জে কোম্পানির শেয়ার লেনদেন প্রথম দফায় ৭ সেপ্টেম্বর থেকে ২২ সেপ্টেম্বর পর্যন্ত, দ্বিতীয় দফায় ২২ সেপ্টেম্বর থেকে ৭ অক্টোবর পর্যন্ত, তৃতীয় দফায় ৮ অক্টোবর থেকে ২২ অক্টোবর পর্যন্ত, চতুর্থ দফায় ২৩ অক্টোবর থেকে ২১ নভেম্বর পর্যন্ত, পঞ্চম দফায় ২২ নভেম্বর থেকে ৬ ডিসেম্বর পর্যন্ত, ষষ্ঠ দফায় ৭ ডিসেম্বর থেকে ২১ ডিসেম্বর পর্যন্ত, সপ্তম দফায় ২২ ডিসেম্বর থেকে ৫ জানুয়ারি, অষ্টম দফায় ৬ জানুয়ারি থেকে ২০ জানুয়ারি পর্যন্ত, নবম দফায় ২১ জানুয়ারি থেকে ৪ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত, ১০ম দফায় ৫ ফেব্রুয়ারি থেকে ১৯ ফেব্রুয়ারি পর্যন্ত, ১১ দফায় ২০ ফেব্রুয়ারি থেকে ৪ মার্চ পর্যন্ত এবং ১২ দফায় ৭ মার্চ থেকে ২১ মার্চ পর্যন্ত, ১৩ দফা ২২ মার্চ থেকে ৫ এপ্রিল, ১৪ দফায় ৬ এপ্রিল থেকে ২০ এপ্রিল, ১৫ দফা ২১ এপ্রিল থেকে ৫ মে, ১৬ দফা ৬ মে থেকে ২০ মে পর্যন্ত বন্ধ ছিল কোম্পানির লেনদেন। এবার ১৭ দফায় আরো ১৫ দিন লেনদেন বন্ধ থাকবে।

বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ অর্ডিন্যান্স ১৯৬৯ এর সেকশন ৯ এর ৭ ধারা অনুযায়ী লেনদেন স্থগিত করার নির্দেশনা দেয় কমিশন।

অপরদিকে, ১৯৬৯ সালের অর্ডিন্যান্সের সেকশন ৯ এর ৮ ধারা অনুযায়ী প্রথম পর্যায়ে ৩০ দিনের জন্য লেনদেন স্থগিত করতে পারে। পরে এটি ১৪ দিন করে বৃদ্ধি করতে পারে। এই সেকশন অনুযায়ী কোম্পানির লেনদেন আরও ১৫ দিন বন্ধ রাখার মেয়াদ বাড়ানো হয়েছে।

কোম্পানির উদ্যোক্তারা পুঁজিবাজার থেকে তালিকাচ্যুতির বিষয়ে কমিশনে আবেদন করেন। পরে কমিশন বিনিয়োগকারীদের স্বার্থে কোম্পানির লেনদেন স্থগিত করার সিদ্ধান্ত নেয়।

বেক্সিমকো সিনথেটিক্স পুঁজিবাজারে ১৯৯৩ সালে তালিকাভুক্ত হয়েছে।

ওএস/আরপি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here