বিকিনি পরুন কিন্তু অপ্রয়োজনে বিকিয়ে দেবেন না: জ্যোতি

0
76

বার্তা ডেস্ক: সোশ্যাল মিডিয়ায় অনেক তারকা সাহসী ছবি পোস্ট করেন। এ নিয়ে আলোচনা-সমালোচনাও কম হয় না। এই সমালোচনায় অনেক সময় মিডিয়ার তারকারাও যোগ দেন। অনেক মনে করেন, এ ধরনের ছবি পোস্ট করে সাময়িক আলোচনায় আসা গেলেও তা ক্যারিয়ারে প্রভাব ফেলে না। বলা যায়, এগুলো ব্যর্থ প্রচেষ্টা। অভিনেত্রী জ্যোতিকা জ্যোতিও তাই মনে করেন।

জ্যোতি সম্প্রতি ফেইসবুকে একটি স্ট্যাটাস দিয়েছেন। লিখেছেন: ‘মিডিয়ার আকালে অনেকে স্টিল ছবি দিয়ে হিট লিস্টে থাকার প্রাণপণ চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়ে ছেলেরা পিছিয়ে, আর মেয়েরা এগিয়ে। এতটাই এগিয়ে যে, তাদের পোশাকের সঙ্গে বডি-কালচার-মিডিয়া বা তার ফ্যামেলি ব্যাকগ্রাউন্ড কোনোটারই মিল নেই। কিন্তু তাদের খোলামেলা ছবি আপলোড করে আলোচনায় থাকার কি নিদারুণ চেষ্টা!’

এই অভিনেত্রীকেও বিভিন্ন সময় সাফার করতে হয়েছে। বিষয়টি উল্লেখ করে জ্যোতি আরো লিখেছেন: ‘চ্যালেঞ্জ করে বলতে পারি এসব ছবি আপনাদের একটা কাজও এনে দেবে না। তাছাড়া পার্সোনাল ব্লগ/ পেইজে এসব আপলোড করার যে উদ্দেশ্য আপনার সেসব মেকি! এসব পোস্টের বিপরীতে আপনি যেসব গালিগালাজ শুনছেন তাতে করে আপনি যদি ভাবেন আপনি বড় সেলিব্রিটি তাই এরকম শুনতেই হয়, সেটাও ভুল।’

‘টলিউড-বলিউড-হলিউডের সামাজিক কালচার যেমন, তেমনই পর্দায় দেখা যায়। কিন্তু বাংলার লোকেরা সেটা কপি-পেস্ট কেন করে বুঝি না? ফলো করলেও একটা কথা ছিল!’ উল্লেখ করে জ্যোতি পরামর্শ দিয়েছেন: ‘আমার সাজেশন থাকবে, সমাজ ও পারিপার্শ্বিক অবস্থা বুঝে পোশাক পরুন। প্রয়োজনে বিকিনি পরুন কিন্তু অপ্রয়োজনে বিকিয়ে দেবেন না। প্রয়োজনে একদম খুলুন এবং মেলে দিন কিন্তু অপ্রয়োজনে খোলামেলা হবেন না। এতে ইমেজ আরো বাজে হয়। আপনি আর্টিস্ট, আর্টে থাকুন। আপনার গল্পের চরিত্রদের জন্য কিছু জমিয়ে রাখুন। বাজে খরচ ভালো না। ধন্যবাদ।’

আয়না’, ‘নন্দিত নরকে’, ‘জীবনঢুলী’, ‘অনিল বাগচীর একদিন’ সিনেমায় অভিনয় করে জ্যোতিকা জ্যোতি অভিনয় দক্ষতার প্রমাণ রেখেছেন। কলকাতায় জ্যোতি অভিনীত ‘রাজলক্ষ্মী ও শ্রীকান্ত’ প্রশংসিত হয়েছে। সর্বশেষ এই অভিনেত্রীর ‘মায়া: দ্য লস্ট মাদার’ মুক্তি পেয়েছে।

ওএস/আরপি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here