উবার-পাঠাওসহ সব রাইড শেয়ারিং অ্যাপ বন্ধ

0
81

বার্তা প্রতিবেদক: রাইড শেয়ারিং অ্যাপ উবার, পাঠাওসহ অন্যান্য অ্যাপ তাদের সেবা বন্ধ করে দিয়েছে। করোনা পরিস্থিতি আরও খারাপ হওয়ায় সরকার সীমিত পরিসরের লকডাউন ঘোষণা করলে সোমবার (২৮ জুন) সকাল থেকে গণপরিবহন বন্ধ হয়ে যায়। এরপর রাইড শেয়ারিং অ্যাপগুলোও তাদের সেবা বন্ধ করে দিয়েছে। যদিও বেশ কিছুদিন ধরে সহজের রাইড শেয়ারিং বন্ধ আছে।

এ বিষয়ে জানতে চাইলে পাঠাও থেকে একটি বিবৃতি পাঠানো হয়। কর্তৃপক্ষ বলছেন, ২৮ জুন থেকে তারা সেবা বন্ধ রেখেছেন। পাঠাও থেকে গণমাধ্যমে পাঠানো বিজ্ঞপ্তিতে বলা হয়েছে, চলমান লকডাউনে বিআরটিএ’র জারিকৃত নির্দেশনা অনুযায়ী ‘পাঠাও’র রাইড শেয়ারিং কার্যক্রম সীমিত সময়ের জন্য স্থগিত থাকবে। তবে এই সময়ে পাঠাও ডিজিটালের অন্যান্য ব্যবসায়িক সেবা কার্যক্রম চালু থাকবে। সাময়িক এই অসুবিধার জন্য গ্রাহক, শুভানুধ্যায়ী ও সংশ্লিষ্টদের কাছে দুঃখ প্রকাশ করেছে প্রতিষ্ঠানটি। করোনাভাইরাস মোকাবিলায় সরকার নির্দেশিত স্বাস্থ্যবিধি কঠোরভাবে মেনে চলারও আহ্বান জানিয়েছে প্রতিষ্ঠানটি।

উবার তার সেবা বন্ধ করলেও ২৮ জুন মধ্যরাত পর্যন্ত তার গ্রাহকদের কিছু জানায়নি। অ্যাপ চালু করলে শুধু উবারের মটো কানেক্ট (পার্সেল) সেবা চালুর আছে বলে দেখা গেছে। এদেশে উবারের জনসংযোগ প্রতিষ্ঠান বেঞ্চমার্ক পিআর’র সঙ্গে যোগাযোগ করলে তাদের কাছেও এ বিষয়ে কোনও তথ্য নেই বলে জানায় প্রতিষ্ঠানটি।

তবে একটি সূত্র জানায়, উবার বরাবরই বিআরটিএ’র জারি করা নির্দেশনা অনুসরণ করে। সে কারণে পূর্ব ঘোষণা ছাড়াই তারা সেবা বন্ধ রেখেছে।

সহজ রাইড কর্তৃপক্ষ করোনাকালে যাত্রীদের স্বাস্থ্যসুরক্ষার জন্য বেশ কিছুদিন ধরে তাদের তাদের রাইড শেয়ারিং বন্ধ রেখেছে। দেশের করোনা পরিস্থিতির উন্নতি হলে সহজ তাদের রাইড শেয়ারিং সেবা চালু করবে বলে প্রতিষ্ঠানটির জনসংযোগ বিভাগ সূত্রে জানা গেছে।

রাইড শেয়ারিং সেবা বন্ধ রাখলেও চালু আছে ফুড ও পার্সেল সেবা। উবার, পাঠাও, সহজ, ইফুড, ফুডপান্ডা, হাংরিনাকি ইত্যাদি প্রতিষ্ঠানগুলো তাদের ফুড ও পার্সেল সেবা চালু রেখেছে।

ওএস/আরপি

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here